উত্তরায় পোশাক শ্রমিকদের অবরোধ ও বাসে আগুন

অনলাইন ডেস্ক: বকেয়া বেতন পরিশোধ, ন্যূনতম মজুরি বাস্তবায়নসহ বিভিন্ন দাবিতে রাজধানীর উত্তরায় পোশাক শ্রমিকরা রাস্তায় নেমে বিক্ষোভ ও অবরোধ করেছে। এতে শ্রমিকদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষের ঘটনাও ঘটেছে। শ্রমিকরা একটি বাসে আগুন দিয়েছে। এতে ঢাকা-ময়মনসিংহ সড়কে যান চলাচন বন্ধ হয়ে গেছে।

আজ সোমবার দুপুরের দিকে বিমানবন্দরের সামনের সড়কে একটি বাসে শ্রমিকরা আগুন ধরিয়ে দেন। ঢাকার প্রবেশমুখ বিমানবন্দর সড়কে পোশাক শ্রমিকদের দ্বিতীয়দিনের বিক্ষোভের কারণে ওই পথে বন্ধ হয়ে গেছে যান চলাচল।

রাস্তা অবরোধের পর শ্রমিকদের রাস্তা থেকে সরিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করে পুলিশ। এ সময় পুলিশের সঙ্গে শ্রমিকদের ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় বেশ কয়েকজন পোশাক শ্রমিক আহত হয়েছেন বলে জানা গেছে।

ঢাকা-ময়মনসিংহ সড়কে গাড়ি চলাচল বন্ধ হয়ে পড়ায় ভোগান্তির শিকার হয়েছেন বিপুলসংখ্যক পথচারী। মহাসড়কের যানজট বিভিন্ন গলিতেও গিয়ে পৌঁছেছে। বিদেশগামী যাত্রীদের অনেকেই ফ্লাইট মিস করার আশঙ্কা করছেন।

আজ দুপুর ১টা ১০ মিনিটের দিকে বিমানবন্দরের সামনের চত্বরসংলগ্ন রাস্তায় এনা পরিবহনের বাসটি ভাংচুরের পর তাতে আগুন দেন শ্রমিকরা। বিমান বন্দর জোনের সহকারী পুলিশ কমিশনার মিজানুর রহমান বিক্ষোভের বিষয়টি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন। বিক্ষোভের কারণে বেলা সোয়া ১২টা থেকে আজমপুর, জসমিউদ্দিন ক্রসিং এবং বিমানন্দর সড়কে যান চলাচল বন্ধ রয়েছে বলে জানিয়েছেন তিনি।